সিনে সমাচার

ব্যোমকেশ-এ পরমব্রত ও রুদ্রনীল 

  সিনেঘর ওয়েব দল

৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

ফের বড় পর্দায় দেখা যাবে ব্যোমকেশ বক্সীকে। সঙ্গে থাকছেন অজিতও। কথাসাহিত্যিক শরদিন্দু বন্দোপাধ্যায়ের অমর গোয়েন্দা চরিত্রে এবার দেখা যাবে পরমব্রতকে। আর অজিত? রুদ্রনীল ঘোষ।

ছবির নাম ‘সত্যান্বেষী ব্যোমকেশ‘। ছবির টিজার মুক্তি পেল গত শনিবার। আবির চট্টোপাধ্যায় ও যীশু সেনগুপ্তর পর এবার সত্যান্বেষণে নামছেন ব্যোমকেশ জগতে নতুন এই দুই তরুণ তুর্কী। গত কয়েক বছর থেকে দুর্গাপুজা মানেই যেন ব্যোমকেশ। প্রতি পুজায় ভক্তদের রহস্যের জট খুলতে হাজির বক্সী সাহেব। এবারও তার ব্যতিক্রম নয়। তবে গল্পে এবার ব্যতিক্রমের ছোঁয়া লাগতে পারে। টিজারে পরমব্রতের গলায় সেটাই যেন খানিকটা শোনা গেল। তাহলে এবারের পুজায় কি অন্য এক ব্যোমকেশ অপেক্ষা করছে? কে জানে। তার জন্য অপেক্ষা করতে হবে ছবি মুক্তি অবধি।

টিজারেই ব্যোমকেশ ও অজিতের চরিত্র দিয়ে ব্যতিক্রমের উদাহরণ দেওয়া হলো। ছবির কাস্টিং, প্রযোজনা সংস্থা, পরিচালক, সবখানেই নাকি থাকছে নতুন মুখ। পুরনো মুখ বলতে আছেন ওই ব্যোমকেশ ভক্ত অঞ্জন দত্ত। এ নিয়ে আর কথা নয়। এখন ঘুরে আসব ব্যোমকেশ নিয়ে বিগত দিনের ছবিগুলো থেকে।

২০১৮ ব্যোমকেশ গোত্র: আবীর চট্টোপাধ্যায় ও রাহুল ব্যানার্জি
২০১৭ ব্যোমকেশ ও অগ্নিবান: যীশু সেনগুপ্ত ও শাশ্বত চ্যাটার্জি
২০১৬ ব্যোমকেশ পর্ব: আবীর চট্টোপাধ্যায় ও ঋত্বিক চক্রবর্তী
২০১৬ ব্যোমকেশ ও চিড়িয়াখানা: যীশু সেনগুপ্ত ও শাশ্বত চ্যাটার্জি
২০১৫ হর হর ব্যোমকেশ: আবীর চট্টোপাধ্যায় ও ঋত্বিক চক্রবর্তী
২০১৫ ব্যোমকেশ বক্সী: যীশু সেনগুপ্ত ও শাশ্বত চ্যাটার্জি
২০১৫ শজারুর কাঁটা: ধৃতিমান চট্টোপাধ্যায় ও প্রদীপ মুখোপাধ্যায়
২০১৫ ডেটেকটিভ ব্যোমকেশ বক্সী: সুশান্ত সিং রাজপুত ও আনন্দ তিওয়ারি
২০১৪ ব্যোমকেশ ফিরে এল: আবীর চট্টোপাধ্যায় ও শাশ্বত চট্টোপাধ্যায়
২০১৪ দূরবীন: সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়
২০১৩ সত্যান্বেষী: সুজয় ঘোষ ও অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়
২০১২ আবার ব্যোমকেশ: আবীর চট্টোপাধ্যায় ও শাশ্বত চট্টোপাধ্যায়
২০১০ ব্যোমকেশ বক্সী: আবীর চট্টোপাধ্যায় ও শাশ্বত চট্টোপাধ্যায়
২০০৯ মগ্ন মৈনাক: শুভ্রজিত দত্ত ও রাজর্ষি মুখোপাধ্যায়
১৯৭৪ শজারুর কাঁটা: সতীন্দ্র ভট্টাচার্য্য ও শৈলেন মুখোপাধ্যায়
১৯৬৭ চিড়িয়াখানা: উত্তম কুমার ও শৈলেন মুখোপাধ্যায়





আরও দেখুন

 খুঁজুন